মৃন্ময় ৪২

বহুকাল তো বেঁচে ছিলাম অনন্ত নক্ষত্র মেলায় একাকী জল জ্বোছনা হয়ে। নিজের আলোয় আলোকিত করে গিয়েছি পৃথিবী ।যখনই আমার তোমাকে প্রয়োজন হলো, যখনই বেলার কোলে হেলা হয়ে ঢলে পরতে লাগলাম, তখনই তোমার ভিতরের গুপ্ত শৈবাল কীট হয়ে আমার অন্তরাত্বাকে ক্ষতবিক্ষত করে দিতে লাগলো।

কিসের এত অহংকার তোমার! কিসের নেশায় বুঁদ তুমি দু’পায়ে সবুজের বুক দর্পে বেড়াও?

ভালবাসার অপর পিঠটাই শেষ অবধী বেঁছে নিলে! নেবেইতো! আমার ভাগ্যরেখায় তুমি বড্ড বেশী বেমানান।
তোমায় আজ দিলেম ছুটি!